খুব শীঘ্রই বাজারে আসছে Microsoft-এর Surface Laptop 3

২০১৭ সালে যখন প্রথম Surface Laptop বের হলে, এটি কেবল Windows 10S চলার উপযোগী ছিলো। Tablet-এর উপযোগী Surface lineup-এর সাথে ব্যাপারটা কেমন খাপছাড়া খাপছাড়া লাগছিলো। অবশ্য পরবর্তী নভেম্বরে যখন ভেতরকার অবস্থার পরিবর্তন এনে Surface Laptop 2 বের হলো, এটা তখন বাজারে অন্যতম সেরা ল্যাপটপ হিসেবে গণ্য হলো। তো এবার প্রশ্ন উঠেছে: Surface Laptop কেমন হবে?

Microsoft-এর পণ্য হিসেবে কিছু বিষয় তো নিশ্চিত হওয়াই যাচ্ছে। যেমন Intel Whiskey Lake অথবা Ice Lake processor থাকবে, screen resolution বাড়বে এবং Thunderbolt 3 এর উপস্থিতি ইত্যাদি। তবে এর বাইরে আরেকটি বিষয়ও বিবেচনায় উঠছে: Microsoft কি তার মালিকানাধীন Surface connector ছেড়ে দিবে?এটা অবশ্য পরিষ্কার যে এই মুহূর্তে Surface Laptop 3 নিয়ে কোনো সঠিক তথ্যও পাওয়া যাচ্ছে না। তবে এর মানে এটি নয় যে আমরা কিছু প্রত্যাশা রাখতে পারি না। তাই এই পেইজটি বুকমার্ক করে রাখুন, কেননা Surface Laptop 3 নিয়ে সব খবরই আমরা হাজির করবো আপনাদের সামনে ।





  

Surface Pro 7 বাদে কেবল দুটি Surface Laptop বাজারে এনেছে Microsoft। তাও বেশিদিন নয়, কেবল ২ বছরের মধ্যেই। সুতরাং আমাদের হাতে উপযুক্ত তথ্যও কম। প্রথম Surface Laptop ২০১৭-এর জুনে এসেছিলো Surface Pro-এর সাথে। সেই তুলনায় Surface Laptop 2 বেশ দেরীতেই এসেছে, ২০১৮-এর অক্টোবরে। ধারণা করা হচ্ছে ২০১৯-এর কোনো এক সময়ে আমরা Surface Laptop 3-এর দেখা পাবো। তবে ঠিক কবে, তা এখনো জানা যায়নি । হতে পারে Microsoft এটি সেপ্টেম্বরে আগে-পরে আনছে, যেহেতু শিক্ষার্থীদের কাছে জনপ্রিয় ল্যাপটপ এটি।

অবশ্য যদি সে সময়ে Microsoft ল্যাপটপটি বাজারে না আনে, তাহলে এটিতে next generation Ice Lake Chips processor না থেকে Intel Whisky Lake processor-এর ব্যবহার হতে পারে, যেটা upgrade হিসেবে Surface Laptop 2-এর Kaby Lake Refresh part-থেকে খুব ভালো মানের processor হবে ।এগুলো অবশ্য সবই অনুমান ও ধারণা, সুতরাং সতর্কতার সাথে বিশ্বাস করাই উচিত। Surface Laptop 2-এর Release-এর তারিখের ব্যাপারে জানলে আমরা এই পেইজ আপডেট দিবো।

Intel Core m3 processor ও Windows 10 S-সহ প্রথম Surface Latptop-এর দাম ছিলো ৭৯৯ মার্কিন ডলার (প্রায় ৫৬০ পাউন্ড, ১০০০ অস্ট্রেলিয়ান ডলার)। অবশ্য Surface Laptop 2-এর দাম বেশ বেড়েছিলো; ৯৯৯ মার্কিন ডলার (৯৭৯ পাউন্ড, ১৪৯৯ অস্ট্রেলিয়ান ডলার)।এত চড়া মূল্যের পেছনে প্রত্যেক configuration-এ full-fat Ultrabook processor এবং full Windows 10 Home থাকাটাই বেশ কাজ করেছে। আমাদের ধারণা, Microsoft সম্ভবত Surface Laptop 3-এর জন্য ৯৯৯ মার্কিন ডলার (৯৭৯ পাউন্ড, ১৪৯৯ অস্ট্রেলিয়ান ডলার) মূল্য নির্ধারণ করতে পারে, যেহেতু Dell XPS 13-এর মতো অন্যান্য Ultrabook-এর সাথে পাল্লা দেয়া লাগবে।



Surface Laptop 2 তার আগের Surface Laptop থেকে এতটাই উন্নত, নতুন Surface Laptop 3-তে আর কি কি উন্নতি আসতে পারে তা বলা দুষ্কর ।  তবুও কিছু প্রযুক্তিগত পারদর্শিতা থেকে আমরা কিছু আশা করতে পারি এর ব্যাপারে: Surface Laptop 2 ইতোমধ্যেই ভালো CPU-এর অধিকারী। আগের dual-core Kaby Lake chips থেকে quad-core 8th-generation Kaby Lake Refresh processor ব্যবহার করা হয়েছে এখানে। তবে, বাড়ে যদি গতি, হবে কি ক্ষতি? Surface Laptop 3-তে এমন কিছুই আশা করছি আমরা। Intel Whisky Lake-সহ বেশ কিছু অধিক গতির Ultrabook-class processor ইতোমধ্যেই বাজারে আছে। তবে upgrade-এর সময়ে তাদের performance-এ যৎসামান্যই উন্নতি হয়। তবে CES 2019-এ Intel তার 10nm Ice lake processor-এর ঘোষণা দিয়েছে এবং কথাও দিয়েছে,  performance কিছু কিছু ক্ষেত্রে দ্বিগুণ বাড়বে। যদিও performance-এর ব্যাপারে Intel-এর দাবী পুরোপুরি বিশ্বাসের কিছু নেই, তবুও 10nm processor থেকে performance ও battery life বিষয়ে ভালোই লাভ হবে।

Thunderbolt 3 যেন ক্ষণে ক্ষণেই সকল স্থানে ছড়িয়ে পড়ছে। প্রচুর monitor, external hard drive এবং অন্যান্য যন্ত্রপাতি Thunderbolt 3 ব্যবহার করছে। Microsoft-এর উচিত হবে তার পরবর্তী ল্যাপটপগুলোতেই এই প্রযুক্তি আনা। সম্ভবত Surface connector খুব বেশি দিন চলবে না। ভাগ্যক্রমে Microsoft নতুন একটি magnetic USB-C charger প্যাটেন্ট করেছে, যা দুই জগতেরই সেরা বিষয়গুলো একত্রিত করেছে। আশা করি Surface Laptop 3 বাজারে আসবার আগেই প্রযুক্তিটি প্রস্তুত হয়ে যাবে।




Surface Laptop 2-এর ডিজাইনে খুব বেশি পরিবর্তন আনা হয়নি। কেবল কালো রঙ-এর বডি অপশন রেখেছে। যদিও এ ব্যাপারে ব্যবহারকারীদের থেকে কোনো অভিযোগ আসেনি, তবুও নতুন ল্যাপটপে আরেকটু পাতলা বডি ডিজাইনের আশা আমরা করতেই পারি। অবশ্য পাতলা জিনিসপত্রের দিকে Microsoft-এর যাওয়া আসা কম। তবে একটি পাতলা Type Cover-এর প্যাটেন্ট করেছে কোম্পানিটি, যার সাথে printed circuit board-এর মধ্যেই একটি touchpad তৈরি করা হয়েছে। এ কারণে Surface Pro 7 আরেকটু ছোটো ডিজাইন পেতে পারে। তবে আশা করি একই ডিজাইন অন্যান্য Surface ডিভাইসেও থাকবে।

পোস্টটি ভালো লাগলে Like দিন, ল্যাপটপটি সম্পর্কে কোন কিছু জানার থাকলে অবশই কমেন্ট করবেন এবং প্রতিদিন প্রযুক্তির সব letest নিউজের Update পেতে প্রযুক্তির আলো.কম-এর সাথে থাকুন ।