Huawei বাজারে নিয়ে এলো 16MP Pop-up ক্যামেরার Huawei P Smart Z

111

গত মাসে আসন্ন Huawei P Smart Z-এর press render অনলাইনে প্রকাশিত হয়েছিলো। ছবিগুলো দেখে আমরা নিশ্চিত হয়েছিলাম, ডিভাইসটির থাকছে notch-less display এবং pop-up selfie camera। সম্প্রতি Huawei Y9 Prime 2019-এর ছবিও ফাঁস হয়েছে; রয়েছে P Smart Z-এর মতো একই ডিজাইন, সাথে two-tone glossy body এবং true bezel-less display। Huawei P Smart Z-তে ছিলো dual rear camera, যেখানে Huawei Y9 Prime 2019-এ ছিলো triple rear camera।

 Huawei বাজারে নিয়ে এলো 16MP Pop-up ক্যামেরার Huawei P Smart Z

এবার Huawei P Smart Z তালিকাভুক্ত হলো Amazon Italy-তে। প্রকাশ করা হয়েছে ব্যবহৃত প্রযুক্তির সম্পূর্ণ খতিয়ান এবং দাম। Gradient finish-এর বদলে ডিভাইসটিতে থাকছে two-tone finish। কালার অপশন ৩টি- কালো, নীল এবং সবুজ। দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ২৮০ ইউরো (প্রায় ৩১৫ মার্কিন ডলার/২৫০০০ টাকা)। প্রি-অর্ডার করার সুযোগ থাকছে এখন। এমন দামে ইউরোপে এখন সাধ্যের মধ্যে full-screen স্মার্টফোনের তালিকায় প্রথম Huawei P Smart Z।

ডিভাইসটির রয়েছে 3D curved glass body। হাতে ধরতে তাই সুবিধা, দেখতেও লাগবে দারুণ। পূর্বে যেমন দেখা গিয়েছিলো, ডিভাইসটির সামনে রয়েছে পূর্ণ bezel-less display এবং উপরে pop-up camera। যেহেতু budget price-এর মধ্যে ফোন, bottom chin সে অনুযায়ী কিছুটা মোটা। রয়েছে  6.59-inch Ultra FullView display এবংFull HD+ (2340 x 1080 pixels) resolution। ভেতরে থাকছে 12nm HiSilicon Kirin 710F octa-core processor এবং Mali-G51 GPU। Kirin 710F-এর পারফর্মেন্স Kirin 710-এর মতোই, কিন্তু packaging process ভিন্ন। ডিভাইসটিতে থাকছে 4GB RAM এবং 64GB internal storage। MicroSD-এর মাধ্যমে storage 512 GB পর্যন্ত বাড়ানো যাবে।


ডিভাইসটিতে থাকছে একটি 16MP primary sensor (f/1.8 aperture) এবং এঁকোটি 2MP depth sensor। Huawei Y9 Prime 2019-এ ৩য় ক্যামেরাটি হচ্ছে 8MP ultra-wide-angle sensor। Pop-up selfie camera-তে থাকছে 16MP sensor (f/2.2 aperture)। বিভিন্ন অত্যাধুনিক ফিচার যেমন auto scene detection, portrait lighting ইত্যাদি আনা হয়েছে ক্যামেরাগুলোতে।

ডিভাইসটিতে চলবে Android 9.0 Pie-based EMUI 9.0.1। Fingerprint scanner থাকছে বডির পেছন দিকে। Pop-up camera-এর মাধ্যমে face unlock ব্যবস্থাও আছে।ব্যাটারি ক্ষমতা 4,000mAh; ব্যাটারি non-removable। Support করবে কেবল s5V/2A (10W) power input।

ডিভাইসটিতে আছে hybrid SIM card slot। Connectivity-এর জন্য থাকছে  dual VoLTE, Cat.6 LTE, Wi-Fi 802.11 a/b/g/n/ac (2.4GHz ও 5GHz), GPS, A-GPS, Bluetooth 4.2, NFC, 3.5mm audio jack, এবং একটিMicroUSB 2.0 port। অন্যান্য কোন কোন বাজারে ডিভাইসটির পাওয়া যাবে, তা নিয়ে এখনো কিছু জানা যায়নি।

পোস্টটি ভালো লাগলে Like দিন, ফোনটি সম্পর্কে কোন কিছু জানার থাকলে অবশই কমেন্ট করবেন এবং প্রতিদিন প্রযুক্তির সব letest নিউজের Update পেতে (প্রযুক্তির আলো.কম) এর সাথে থাকুন ।     

আরও পড়ুনঃ Nokia বাজারে নিয়ে এলো 13MP Dual ক্যামেরা Nokia 4.2 Android One Smartphone